মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট ২০২০

চলে গেলেন শেরে মিল্লাত ওবায়দুল হক নঈমী

প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম

প্রকাশিত: ০৬ জুলাই ২০২০ সোমবার, ০৬:০৮ পিএম

চলে গেলেন শেরে মিল্লাত ওবায়দুল হক নঈমী

চলে  গেলেন সুন্নিয়তের রত্ন শেরে মিল্লাত মুফতি ওবায়দুল হক নঈমী (৭৮)। সোমবার (৬ জুলাই) বিকালে আসরের নামাজের আগে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে হাসপাতালে নেয়ার পথে তিনি ইন্তেকাল করেন। তিনি বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন। মৃত্যুকালে স্ত্রী, ৫ ছেলেসহ অসংখ্য গুণগ্রাহি রেখে গেছেন।

হাজারো আলেমের শিক্ষক মুফতি নঈমী এশিয়াখ্যাত দ্বীনি প্রতিষ্ঠান জামেয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া আলীয়ার প্রধান মুহাদ্দিস ছিলেন। পরবর্তীতে তিনি শায়খুল হাদীসের দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়া তিনি আহলে সুন্নত ওয়াল জামায়াতের চেয়ারম্যান হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন।

গাউছিয়া কমিটি বাংলাদেশের যুগ্ম মহাসচিব মোসাহেব উদ্দিন বখতিয়ার সারাবেলাকে জানান, শেরে মিল্লাত কয়েকদিন আগে বাসায় অযু করার সময় পানির কলে হাতে ব্যথা পান। এর মধ্যে তিনি সুস্থ হয়ে উঠেন। সোমবার বিকাল ৫টার দিকে আসর নামাজের প্রস্তুতিকালে চট্টগ্রাম নগরীর ষোলশহর শ্যামলী আবাসিক এলাকার বাসায় অসুস্থতাবোধ করেন। এ সময় তাঁর শরীরে রক্তচাপ বেড়ে যায়। পরে বেসরকারি হাসপাতাল সিএসসিআরে নেয়ার পথে তিনি ইন্তেকাল করেন।

জামেয়া আহমদিয়ার অধ্যক্ষ মুফতি সৈয়দ অছিউর রহমান জানান, শেরে শিল্লাত মুফতি ওবায়দুল হক নঈমী সারাজীবন জামেয়ার খেদমত করেছেন। তিনি জামেয়ার প্রধান মুহাদ্দিস ও পরে শায়খুল হাদিস ছিলেন। মঙ্গলবার বাদ জোহর জামেয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া আলীয়া মাঠে তাঁর নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হবে । পরে জামেয়া আহমদিয়া সংলগ্ন কবরস্থানে মরহুমের লাশ দাফন করা হবে। মাওলানা অছিউর রহমান  করোনার এই সময়ে স্বাস্থ্যবিধির বাধ্যবাধকতা থাকায় বেশি ভিড় না করে যে যার মত কোরানখানির মাধ্যমে মাগফেরাত কামনার জন্য অনুরোধ জানান।  

আল্লামা নঈমীর ইন্তেকালের খবরে পুরো চট্টগ্রামজুড়ে শোকের ছায়া নেমে আসে। মুফতি ওবায়দুল হক নঈমীর বাড়ি আনোয়ারা উপজেলার চাঁপাতলি গ্রামে।  

শোক প্রকাশ :

শেরে মিল্লাত ওবায়দুল হক নঈমীর মৃত্যুতে ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ এমপি এক বিবৃতিতে গভীর শোক ও সমবেদনা জানান।  আনজুমানে রহমানিয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া, গাউছিয়া কমিটি বাংলাদেশ, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট পৃথক বিবৃতিতে শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন।

জামেয়ার ‘৯৯ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের সংগঠন জাগরণ‘র সভাপতি আজাদ মঈনুদ্দীন, সাধারণ সম্পাদক শাহজাহান সিরাজ, সাবেক সভাপতি তৈয়বুল ইসলাম, হাফেজ মুহাম্মদ নাজিম উদ্দিন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক রেজা মোজাম্মেল,  অর্থ সম্পাদক মনির আহমদ, কার্যকরী সদস্য বোরহান উদ্দিন আজাদ এক বিবৃতিতে গভীর শোক জানান।