শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

আনোয়ারায় সড়ক বাগানের গাছ কাটছে ইউপি সদস্য ?

প্রতিনিধি, আনোয়ারা , চট্টগ্রাম

প্রকাশিত: ০৪ জানুয়ারি ২০২০ শনিবার, ০৯:৫৮ এএম

আনোয়ারায় সড়ক বাগানের গাছ কাটছে ইউপি সদস্য ?

আনোয়ারায় সড়ক বাগান প্রকল্পের গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যের বিরুদ্ধে। সিংহরা ব্রিক ফিল্ড সড়কে বনবিভাগের বাস্তবায়িত এই প্রকল্পের বেশ কয়েকটি গাছ শুক্রবার ভোর রাতে কেটে নেওয়া হয় বলে জানা গেছে। পরে বনবিভাগ স্থানয়ি একটি স‘মিল থেকে ১৩টি গাছ জব্ধ করে। 

শুক্রবার সকাল ৭ টায় বনবিভাগের অভিযান চালিয়ে পিএবি সড়কের কালা বিবি দিঘির মোড়ের একটি স’মিল থেকে কর্তনকৃত গাছ জব্দ করা হয়। এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ইউপি সদস্য রগু নাথ সরকারের বিরুদ্ধে  মামলা প্রক্রিয়াধীন আছে বলে বনবিভাগ জানিয়েছে।

অভিযুক্ত চাতরী ইউনিয়নের স্থানীয় ৯ নং ওয়াডের্র ইউপি সদস্য রঘু নাথ সরকার অবশ্য অভিযোগ অস্বীকার করে বলেছেন, তিনি এই প্রকল্পের উপকারভোগী। নীতিমালা অনুযায়ী প্রকল্পের ৬৫ ভাগ মালিকানা উপকারভোগীদের। পাল্টা প্রশ্ন করে তিনি বলেন, মালিক হয়ে আমি গাছ কাটব কেন ?  ষড়যন্ত্রমূলকভাকে অপপ্রচার চালানো হচ্ছে।

স্থানীয় ও বন বিভাগ সূত্রে জানা যায়,  ২০০৩-২০০৪ অর্থ বছরে বনবিভাগের উদ্যোগে সড়ক বাগান প্রকল্পে আনোয়ারা উপজেলার চাতরী ইউনিয়নের সিংহরা গ্রামের পূর্ব সিংহরা বিমল সওদাগরের দোকান থেকে রামখানাই উচ্চ বিদ্যালয় হয়ে আনোয়ারা বরকল সড়কের সিংহরা রাস্তার মাথা পর্যন্ত তিন কিলোমিটার সড়কে অর্জুন, আকাশ মনি সহ নানা প্রজাতির গাছের ছাড়া রোপন করা হয়। বিগত ১৫ বছরে গাছ গুলো অনেক বড় হয় । শুক্রবার ভোর রাতে  একদল পাচারকারী গাছ গুলো কেটে নিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয় লোকজনের দৃষ্টি গোচর হলে তারা বনবিভাগের কর্মকর্তাদের খবর দেয়।

অভিযান পারিচালনাকারী বনবিভাগ চট্টগ্রাম দক্ষিণ পটিয়া নার্সারী কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মিজানুর রহমান জানান, ৩ কিলোমিটার সড়কে বর্তমানে কোন ধরণের সরকারি উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ নেই। স্থানীয় ইউপি সদস্য রগু নাথ সরকারের নেতৃত্বে একদল পাচারকারী গাছ গুলো কেটে নিয়ে যায়। পিএবি সড়কের কালা বিবির দিঘি মোড়ের উত্তরে একটি স’মিলে অভিযান চালিয়ে ১৩টি গাছ গুলো জব্দ করা হয়েছে।

চাতরী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইয়াছিন হিরু জানান, গাছ কাটার বিষয়টি আমি স্থানীয়ভাবে অবগত হয়েছি। কারা গাছ গুলো কেটেছে আমি না জানলেও আমি মনে করি এটি একটি বড় অপরাধ।