বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১

করোনার টিকা নিতে ভিড়, নিবন্ধনে বিড়ম্বনা

প্রতিনিধি, আনোয়ারা , চট্টগ্রাম

প্রকাশিত: ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১ শনিবার, ১০:০৫ পিএম

করোনার টিকা নিতে ভিড়, নিবন্ধনে বিড়ম্বনা

আনোয়ারায় চাতরী চৌমুহনিতে শনিবার সকাল থেকে করোনা টিকা নিবন্ধন বুথে ভিড়। ৫ সেচ্ছাসেবী সকাল থেকে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছিলেন। কিন্তু নিবন্ধন ওয়েবসাইটে কিছুতেই সংযোগ করতে পারছিলেন না। আনোয়ারা প্রেসক্লাবের উদ্যোগে বিনামূল্যে সেবা দেওয়া এই নিবন্ধন কেন্দ্রে আগের দিন দু‘শতাধিক নিবন্ধন হলেও শনিবার ইন্টারনেটের শ্লথ গতি হতাশ করেছে সবাইকে। বিকেল ৩টার পর গতি স্বাভাবিক হলে বেশ কিছু নিবন্ধন কার্যক্রম সম্পন্ন করা হয়।

নিবন্ধন কেন্দ্রের সেচ্ছাসেবী সাংবাদিক ইমরান হোসাইন জানান, আগের দুই দিন প্রতি ৩ মিনিটে একটি করে নিবন্ধন সম্ভব হলেও শনিবার সকাল ৮টা থেকে বিকাল পর্যন্ত মাত্র পাঁচটি নিবন্ধন করতে পেরেছেন।তিনটার পর পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হয়। নেটওয়ার্কের অসম্ভব রকম শ্লথ গতির কারণে দিনভর বিড়ম্বনা পোহাতে হয়েছে সাধারণ মানুষকে।

তারপরও টিকা নিতে রেজিস্ট্রেশন বুথ ও আনোয়ারা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে লোকজনের আগ্রহের কমতি ছিল না। শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি থাকায় টিকা কেন্দ্রে উপস্থিতি ছিল অন্য দিনগুলোর চেয়ে বেশি। রেজিস্ট্রেশনের শ্লথ গতির মধ্যেও এক দিনেই টিকা নিয়েছেন ৫৫৯জন। পুরুষের পাশাপাশি মহিলাদের উপস্থিতিও ছিল লক্ষণীয়।

আনোয়ারা উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা আবু জাহিদ মুহাম্মদ সাইফুদ্দিন জানান, প্রথম পর্যায়ে টিকা প্রদানের যে লক্ষ্যমাত্রা তা ২০ ফেব্রুয়ারির মধ্যে সম্পন্ন করার চেষ্টা চলছে। প্রতিদিন ৬৫০ থেকে ৭০০ জনকে টিকা দেওয়ার একটি লক্ষমাত্রা রয়েছে। ইন্টারনেটের শ্লথ গতির মধ্যেও শনিবার ৫৫৯ জনকে টিকা দেওয়া হয়েছে।

জানা যায়, গত রবিবার থেকে আনোয়ারায় করোনা টিকা প্রদান কার্যক্রম শুরুর পর এক সপ্তাহে ১৬শ‘ ৬৫জনকে টিকা দেয়া হয়েছে। প্রথম পর্যায়ে উপজেলায় ১৫ হাজার ৫৫২জনকে টিকা দেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।  হাসপাতালের ১২জন প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত কর্মী দুই শিফটে টিকা প্রদান কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

আনোয়ারা হাসপাতালের সকালে করোনা টিকা দিতে যান অবসরপ্রাপ্ত সরকারী কর্মকর্তা ৭৪ বছর বয়সী আহমদ সৈয়দ। তিনি বলেন, বেশ আন্তরিকতার সাথে হাসপাতালের কর্মীরা সেবা দিয়ে যাচ্ছেন। চার কিলোমিটার দূরে চাঁপাতরী গ্রাম থেকে টিকা নিতে আসেন গৃহবধু কাজী ফাহমিদা হক। তিনি জানান, টিকা গ্রহণের জন্য ভিড় থাকলেও সবকিছু সুশৃংখল। যে কারণে কারো মধ্যে বিরক্তি ছিল না। তবে ইন্টারনেটের গতি কম থাকায় রেজিস্ট্রেশনে বেশি সময় লেগেছে বলে জানান তিনি।

সেচ্ছাসেবী হিসাবে টিকা প্রদানকারীদের বিনামূল্যে রেজিস্ট্রেশনে সেবা দেওয়া সাংবাদিক জাহাঙ্গীর আলম জানান, শনিবার তাদের বুথে এসে অনেকে দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করেছেন। রেজিস্ট্রেশন, টিকা কার্ড প্রিন্ট-এ দীর্ঘ সময় লেগেছে। ইন্টারনেটের গতি দ্রুত থাকলে টিকা গ্রহণকারীর সংখ্যা আরো বাড়ত বলে জানান তিনি।

প্রেসক্লাবের নিবন্ধন বুথে ব্যাপক সাড়া

এদিকে আনোয়ারা প্রেস ক্লাবের উদ্যোগে চালু হওয়া করোনা টিকার নিবন্ধন কেন্দ্রে শনিবারও ছিল সাধারণ মানুষের ব্যাপক উপস্থিতি। নিবন্ধন, টিকা কার্ড প্রিন্টসহ সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে এই বুথ থেকে। 

বিনামূল্যে করোনা ভ্যাকসিন নিবন্ধনে দ্বিতীয় দিনের কার্যক্রমে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার শেখ জোবায়ের আহমেদ।

বেসরকারি এনজিও সংস্থা নির্মল ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় প্রেসক্লাবের ক্রীড়া সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলমের সভাপতিত্বে ও গ্রন্থাগার সম্পাদক মো. ইমরান হোসাইনের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এম.এ মালেক, বৈরাগ ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সোলায়মান, বারশত ইউপি চেয়ারম্যান এম.এ কাইয়ূম শাহ্, বরুমছড়া ইউপি চেয়ারম্যান মো. শাহদাত হোসেন চৌধুরী, চাতরী ইউপি চেয়ারম্যান ইয়াছিন হিরো, সদর ইউপি চেয়ারম্যান অসীম কুমার দেব, সারাবেলা সম্পাদক মঈনুদ্দিন আজাদ, মুক্তিযোদ্ধা ডাক্তার আবুল হাসেম মনছুরী, বারখাইন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এম. জাহাঙ্গীর আলম, আনোয়ারা প্রেসক্লাবের সভাপতি এম. আনোয়ারুল হক, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এম নুরুল ইসলাম, বেসরকারি এনজিও সংস্থা নির্মল ফাউন্ডেশনের মূখ্য কর্মসূচি সম্বয়নকারী নুরুল আবছার তালুকদার,, প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক জাহেদুল হক, শেভরণ ক্লিনিক্যাল ল্যাবটরি আনোয়ারা শাখার ব্যবস্থাপনা পরিচালক মীর মোশারফ হোসেন, আনোয়ারা প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হুমায়ূন কবির শাহ্ সুমন, রেখক ও ছড়াকার রফিক আহমদ খান,  নির্বাহী সদস্য খালেদ মনছুর, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মোহাম্মদ সোহেল, সাংবাদিক এম.এ সবুর, একুশে পত্রিকা প্রতিনিধি জিন্নাত আইয়ূব, এস টিভি প্রতিনিধি রুপন দত্ত।

এসময়ে অন্যান্যদের মধ্যে ফার্মাসিউস্টিক্যাল রিপ্রেজেনটেটিভ এসোসিয়েশনের সভাপতি মাহতাব হোসেন জুয়েল, প্রাইম ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড আনোয়ারা শাখার ইনচার্জ মোহাম্মদ ইদ্রিছ, ছাত্রলীগ নেতা মোহাম্মদ এরফান আলী, আলাউদ্দীন খান, মোহাম্মদ সাকিবসহ শিক্ষক, সাংবাদিক, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।

গত দু’দিনে চার শতাধিক নারী, পুরুষ, মুক্তিযোদ্ধা ও বিশিষ্টজনরা আনোয়ারা প্রেসক্লাবের বিনামূল্যে করোনা ভ্যাকসিন রেজিস্ট্রেশন বুথে নিবন্ধন করেন। এ কার্যক্রম রবিবার বিকাল ৪টা পর্যন্ত চলবে।