সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০

চট্টগ্রামে ডা. শাকিলসহ নতুন আক্রান্ত ৯৮

প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম

প্রকাশিত: ২৭ মে ২০২০ বুধবার, ০৯:০১ এএম

চট্টগ্রামে ডা. শাকিলসহ নতুন আক্রান্ত ৯৮

বিআইটিআইডি ল্যাব প্রধান অধ্যাপক ডা. শাকিল আহমেদ, চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদসহ চট্টগ্রামে মঙ্গলবার (২৬মে) নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৯৮ জন । এর মধ্যে ৮৮ জন মহানগরের ও ১০ জন বিভিন্ন উপজেলার।

ডা. শাকিলের নেতৃত্বে গত ২৬ মার্চ থেকে বিআইটিআইডি ল্যাবে করোনাভাইরাসের নমুনা পরীক্ষা শুরু হয়। ডা. শাকিল আহমেদ চট্টগ্রামে করোনা যদ্ধে একজন সম্মখসারির যোদ্ধা হিসাবে পরিচিত। বর্তমানে চট্টগ্রামে যে তিনটি ল্যাবে করোনা পরীক্ষা হচ্ছে এবং যারা করোনা পরীক্ষার সাথে যুক্ত তাদের সবাইকে প্রশিক্ষণ দিয়েছেন বিআইটিআইডি ল্যাব প্রধান ৫৬ বছর বয়সী এই চিকিৎসক।

চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদের নমুনায়ও করোনাভাইরাসে ‘পজিটিভ’ পাওয়া গেছে বলে জেলা সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বী জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, “বিআইটিআইডির ল্যাবের প্রধান অধ্যাপক ডা. শাকিল আহমেদের এদিনের করা নমুনা পরীক্ষায় কোভিড-১৯ পজিটিভ পাওয়া গেছে।”

মঙ্গলবার (২৬ মে) চারটি ল্যাবে চট্টগ্রামের মোট ৫০৭টি নমুনা পরীক্ষায় মোট ১০১ জন করোনা পজিটিভ শনাক্ত হন। যাদের ৯৮ জন নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন।

সিভিল সার্জনের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী চট্টগ্রামে সবচেয়ে বেশি নমুনা পরীক্ষা হয় বিআইটিআইডি ল্যাবে। ৩৩১টি নমুনা পরীক্ষায় চট্টগ্রাম জেলায় ৫১ জন করোনা পজিটিভ রোগী পাওয়া গেছে ওই ল্যাবে। এর মধ্যে মহানগরে ৪৫ জন ও বিভিন্ন উপজেলার ৬ জন রয়েছেন।

অন্যদিকে চমেক ল্যাবে ৬৭ নমুনা পরীক্ষায় পজিটিভ শনাক্ত হওয়া ৪৬ জনের ৪৪ জন নগরের ও দুই জন৷ উপজেলার বাসিন্দা।

এছাড়া সিভাসু ল্যাবে ১০০ নমুনা পরীক্ষায় চট্টগ্রামের ৩ জন করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে। এর একটিও নগরের নয়। কক্সবাজারে নমুনা পরীক্ষায় লোহাগাড়ার ১ জন করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছেন মঙ্গলবার।

এদিকে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ও চ্যানেল আইয়ের ব্যুরো চিফ চৌধুরী ফরিদ বর্তমানে নিজ বাসায় আইসোলেশনে আছেন।  সাংবাদিক ফরিদ নিজের জন্য ও পরিবারের সবার জন্য সকলের কাছে দোয়া চান।

অসুস্থতার কারণে আইসোলেশনে গেছেন চট্টগ্রাম বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. হাসান শাহরিয়ার কবিরও। তার জায়গায় সাময়িকভাবে নতুন একজন পরিচালক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

ডা. হাসান শাহরিয়ারের শারীরিক অসুস্থতার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বী।  ডা. হাসান শাহরিয়ারের নমুনা করোনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পাঠানো হচ্ছে।

সাময়িকভাবে পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে ডা. মোস্তফা খালেদ আহমদকে। তিনি স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশাসন) হিসেবে কাজ করছিলেন।